BN/Prabhupada 0262 - আমাদেরকে সবসময় ভাবতে হবে যে আমাদের সেবা পূর্ন নয়

From Vanipedia
Jump to: navigation, search
Go-previous.png Previous Page - Video 0261
Next Page - Video 0263 Go-next.png

আমাদেরকে সবসময় ভাবতে হবে যে আমাদের সেবা পূর্ন নয়
- Prabhupada 0262


Lecture -- Seattle, September 27, 1968

তমাল কৃষ্ণঃ প্রভুপাদ, যদি আমরা জানি যে আমাদের সেবা করা উচিত এবং আমরা সেবা করতে চাই, কিন্তু সেবার স্তর এত খারাপ।

প্রভুপাদঃ হ্যাঁ। কখনও মনে কোরো না যে সেবাটি নিখুঁত হচ্ছে। এটি আপনাকে নিখুঁত অবস্থায় রাখবে। হ্যাঁ। আমাদের সর্বদা মনে রাখতে হবে যে আমাদের সেবা সম্পূর্ণ নয়। হ্যাঁ। এটা খুব ভাল। চৈতন্য মহাপ্রভু আমাদের শিক্ষা দিয়েছিলেন যে ... তিনি বলেছেন, অর্থাৎ, "প্রিয় বন্ধু, দয়া করে আমার কাছ থেকে জানুন যে শ্রী কৃষ্ণের ওপর আমার বিশ্বাস এতটুকুও নেই। যদি আপনি বলেন, আমি কেন কাঁদছি, উত্তরটি কেবল দেখানোর জন্য যে আমি একজন মহান ভক্ত। প্রকৃতপক্ষে, আমার মধ্যে কৃষ্ণের প্রতি ভালবাসা এক টুকুও নেই। এই কান্না শুধু একটি শো, "" আপনি এইরকম বলছেন কেন?" "এখন, কথা হচ্ছে আমি কৃষ্ণকে দেখে না দেখে এখনও জীবিত আছি। এর মানে এই যে আমার কৃষ্ণের প্রতি কোন প্রেমই নেই আমি এখনও জীবিত আছি। কৃষ্ণকে দেখতে না পারায় দীর্ঘদিন আগে আমার মারা যাওয়া উচিত ছিল।" সুতরাং আমাদের সেই ভাবে চিন্তা করা উচিত। এটাই উদাহরণ। যাই হোক না কেন আপনি কৃষ্ণের সেবা করতে সক্ষম, আপনাকে সর্বদা জানা উচিত ... কৃষ্ণ অসীম, তাই আপনার সেবাগুলি সম্পূর্ণভাবে তার কাছে নিঁখুতভাবে পৌঁছাতে পারে না। এটি সর্বদা সীমিত থাকবে কারণ আমরা অসম্পূর্ণ। কিন্তু কৃষ্ণ খুব দয়ালু। যদি আপনি সৎভাবে একটি ছোট সেবা প্রদান করেন, তিনি এটি গ্রহণ করেন। এটি শ্রী কৃষ্ণের সৌন্দর্য। সল্পম অপি অস্য ধর্মস্য ত্রায়তে মহতো ভয়াত। এবং যদি কৃষ্ণ আপনার কাছ থেকে একটি ছোট সেবা গ্রহণ করে, তাহলে আপনার জীবন বিস্ময়কর। কৃষ্ণকে সম্পূর্ণ ভালবাসা সম্ভব নয়, কৃষ্ণের সেবা করা, কারণ তিনি অসীম। একটি প্রক্রিয়া আছে, গঙ্গার পূজা ভারতে করা হয়। গঙ্গা নদীকে পবিত্র নদী বলে মনে করা হয়। অতএব, তারা গঙ্গা, গঙ্গা নদীর পূজা করে, গঙ্গা থেকে জল গ্রহণ করে এবং এটি তাকেই প্রদান করে। একটি ছোট পাত্র, পাত্র বা আপনার মুষ্টি, আপনি গঙ্গা থেকে কিছু জল গ্রহণ করুন এবং আপনার ভক্তি এবং মন্ত্র দিয়ে আপনি গঙ্গার জল প্রদান করুন। তাই আপনি গঙ্গা থেকে একটি গ্লাস জল নিয়ে যান এবং গঙ্গাকে এটি প্রদান করুন, গঙ্গা্র কি লাভ, লাভ এবং ক্ষতি বা ক্ষতি বা লাভ? যদি আপনি গঙ্গা থেকে একটি গ্লাস পানি নেন এবং তারপর এট প্রদান করেন, তাহলে গঙ্গার কি সুবিধা? কিন্তু আপনার প্রক্রিয়া, আপনার বিশ্বাস, মা গঙ্গার প্রতি আপনার ভালবাসা, "মা গঙ্গা, আমি আপনাকে এই সামান্য জল দিচ্ছি," এটি গ্রহণ করুন। একইভাবে কৃষ্ণকে দেবার আমাদের কি আছে? সবকিছু কৃষ্ণের অন্তর্গত। এখন আমরা এই ফল প্রদান করেছি। এই ফল কি আমাদের? কে এই ফল উৎপন্ন করেছে? আমি উৎপাদন করেছি? এমন কোন মস্তিষ্ক আছে যা ফল, শস্য, দুধ উৎপন্ন করতে পারে? তারা খুব মহান বিজ্ঞানী। এখন তাদের উৎপাদন করতে দিন। গরু ঘাস খায় এবং আপনাদের দুধ দেয়। তাই এখন, বৈজ্ঞানিক প্রক্রিয়ার, কেন ঘাসকে দুধে বদলে দেবেন না? তবুও এই দুষ্ট, ভগবান আছে এই কথার সঙ্গে তারা একমত না। আপনারা দেখুন? তারা এত কুটিল হয়ে উঠেছে: "বিজ্ঞান।" এবং আপনার বিজ্ঞান কি, বোকা? আপনি দেখেন যে গরু ঘাস খাচ্ছে এবং দুধ দিচ্ছে। কেন তুমি তোমার স্ত্রীকে দিচ্ছি না আর দুধ নিচ্ছ না? কেন আপনি কিনছেন? কিন্তু যদি আপনি একজনকে মানুষকে ঘাস দেন তবে তিনি মারা যাবেন। তাই সবকিছু, ভগবান শ্রীকৃষ্ণের আইন, বা আইন কাজ করছে,ভগবানের, এবং এখনও তারা বলে, "ভগবান মৃত, ভগবান নেই। আমি ভগবান।" আপনি এটা এইভাবে ক্রুন। তারা দুষ্ট এবং বোকা মানুষ হয়ে গেছে। কেন তারা এই বৈঠকে আসে না? "ওহ, স্বামীজি ভগবানের কথা বলছে, পুরানো জিনিস। (হাসি) আমাদের নতুন কিছু খুঁজতে হবে "তুমি কি দেখতে পাচ্ছ? এবং যদি সবাই উল্টোপাল্টা বলে, তাহলে "ওহ, এটা ... তিনি চার ঘন্টার জন্য শূন্য সম্পর্কে আলোচনা করছে। একটু দেখুন। মন্ট্রিয়েলের একজন, একজন ভদ্রলোক, "স্বামীজি, এটা আশ্চর্যজনক, তিনি চার ঘণ্টার জন্য শূন্যের কথা বলেন।" তারা এত মূঢ় ছিলেন যে তারা চার ঘন্টার জন্য শূন্যের জন্য শুনতে চেয়েছিলেন। তুমি কি দেখতে পাচ্ছ? (হাসি) শূন্যের মূল্য কি? এবং তোমার সময়, চার ঘন্টার অপচয়? অন্তিমে সব শূন্য। সুতরাং মানুষ এটা চান মানুষ এটা চান। যদি আমরা সহজ জিনিস বলি - "ভগবান মহান। আপনি চাকর, নিত্য চাকর। আপনার কোনও ক্ষমতা নেই। আপনি সবসময় ভগবানের উপর নির্ভর করেন। শুধু ভগবানের সেবা করুন, আপনি খুশি হবেন "-" ওহ, এটি কি খুব ভাল না।" সুতরাং তারা ঠকতে চান তাই অনেক প্রতারক আসেন এবং ঠকিয়ে দূরে চলে যান, ব্যাস। মানুষ ঠকাতে চায়, তারা সহজ জিনিস চায় না।